বিশ্ব

করোনাভাইরাস সতর্ককারী প্রথম সেই চীনা চিকিৎসকের মৃত্যু

করোনাভাইরাস সতর্ককারী প্রথম সেই চীনা চিকিৎসকের মৃত্যু

করোনাভাইরাস সতর্ককারী প্রথম সেই চীনা চিকিৎসকের মৃত্যু

মাত্র ১৫ সেকেন্ডেই পাশের জন আক্রান্ত হচ্ছেন করোনাভাইরাসে

করোনাভাইরাস সতর্ককারী প্রথম সেই চীনা চিকিৎসকের মৃত্যু ।।  মারা গেলেন করোনাভাইরাস সম্পর্কে সতর্ককারী প্রথম সেই চীনা চিকিৎসক। চীনা নাগরিকাদের করোনাভাইরাস সম্পর্কে যে সকল চিকিৎসকরা প্রথম সতর্ক করেছিলেন তাদের একজন ডাঃ লি ওয়েনল্যাং। সবশেষ সেই চিকিৎসকও করোনাভাইরাসের কাছে হার মানলেন।

চীনা সংবাদমাধ্যমের বরাত দিয়ে বৃহস্পতিবার বিবিসির প্রতিবেদনে এ কথা জানানো হয়।

করোনাভাইরাসের উৎপত্তিস্থল উহানের কেন্দ্রীয় হাসপাতালে চক্ষু বিশেষজ্ঞ হিসেবে কর্মরত ছিলেন ৩৪ বয়সী এই চিকিৎসক। গত ৩০ ডিসেম্বর লি ওয়েনলিয়াং তার সহকর্মীদের ওই ভাইরাস নিয়ে সতর্কবার্তা দিয়েছিলেন।

মাত্র ১৫ সেকেন্ডেই পাশের জন আক্রান্ত হচ্ছেন করোনাভাইরাসে

গত এক মাসে চীনে হু হু করে ছড়িয়ে পড়েছে করোনা ভাইরাস। আতঙ্কে কার্যত গৃহবন্দী করে রাখা হয়েছে চীনের ইউহান প্রদেশের বাসিন্দাদের। অন্যান্য দেশেও তাদের যেতে দেওয়া হচ্ছে না। এই ভাইরাস দ্রুত ছড়িয়ে পড়ার আশঙ্কা রয়েছে। তবে এতটাই দ্রুত ছড়িয়ে পড়ছে যে তা কল্পনার বাইরে।

জানা গেছে, চীনের ঝেজিয়াং প্রদেশে দু’জন এই ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে, যাদের শরীরে এই ভাইরাস প্রবেশ করেছে যথাক্রমে ৫০ সেকেন্ডে ও ১৫ সেকেন্ডে। চীনের সংবাদমাধ্যম সূত্রে এই খবর জানা গেছে।

ঝেজিয়াং প্রদেশের হাংঝউ এলাকার এক বাসিন্দার সঙ্গে এই ঘটনা ঘটেছে। করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন এমন একজন মানুষের পাশে হাসপাতালে ৫০ সেকেন্ড দাঁড়িয়েছিলেন তিনি। আর তাতেই তাঁর শরীরে ওই ভাইসার ঢুকে যায়। দু’জনের মুখেই তখন মাস্ক ছিল না। শুধু এখানেই নয়, চীনের বিভিন্ন শহরে একই অবস্থা।

সূত্র : কলকাতা টাইমস।

 

আরও পড়ুনঃ

সর্বশেষ সংবাদ                                 

কানাডার সংবাদ

দেশ-বিদেশের টাটকা খবর আর অন্যান্য সংবাদপত্র পড়তে হলে cbna24.com 

cbna24-7th-anniversary
Facebook Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.

fourteen + 15 =